আজ ১৪ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৯শে জুলাই, ২০২১ ইং

৩০০০ শিক্ষার্থীর মাঝে ডিসিএল ল্যাপটপ বিতরণ  করল  ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি 

মোকাব্বির আলম সানি, নিজস্ব প্রতিবেদক : 

 
তথ্য প্রযুক্তির ক্রমবিকাশমান ধারার সাথে প্রতিটি শিক্ষার্থীকে যুগোপযোগী করে তুলতে এবং প্রতিযোগীতা মূলক চাকরি বাজারে দক্ষতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে ‘একজন ছাত্র একটি ল্যাপটপ’ প্রকল্পের নিয়মিত কর্মসূচীর অংশ হিসাবে ২৩তম পর্বে গত ২২ নভেম্বর ২০২০ (রবিবার) ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ‘স্বাধীনতা’ মিলনায়তনে স্বাস্থ্যবিধি মেনে  শিক্ষার্থীদের মাঝে বিনামূল্যে ৩০০০টি 10th Generation এর ডিসিএল ব্র্যান্ডের ল্যাপটপ বিতরণ করা হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য প্রফেসর ড. এস এম মাহাবুবুল হক মজুমদারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে ভার্চুয়াল যোগ দেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের আইসিটি বিভাগের সচিব এন এম জিয়াউল আলম পিএএ। বিশ্ববিদ্যালয়ের স্টুডেন্ট এফেয়ার্সের পরিচালক সৈয়দ মিজানুর রহমানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন একাডেমিক  এফেয়াস   ডীন প্রফেসর ড. মোস্তফা কামাল। ড্যাফোডিল কম্পিউটার্স লিমিটেডের সহায়তায় ড্যাফোডিল বিশ্ববিদ্যালয় ল্যাপটপ বিতরণ করে আসছে।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে আইসিটি বিভাগের সচিব এন এম জিয়াউল আলম পিএএ বলেন, আজ থেকে বার বছর আগে ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার যে স্বপ্ন বর্তমান সরকার দেখেছিল সেই স্বপ্ন পূরণে অগ্রণী ভূমিকা পালন করছে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি। বিশ্ববিদ্যালয়টি তাদের শিক্ষার্থীদেরকে প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষায় শিক্ষিত করার পাশাপাশি আধুনিক প্রযুক্তিনির্ভর শিক্ষায় শিক্ষিত করার মাধ্যমে দেশকে দক্ষ মানবসম্পদ উপহার দিচ্ছে। শুধু তাই নয়, দেশের উন্নয়নের সঙ্গে তাল মিলিয়ে নিজেদের শিক্ষা কার্যক্রমেও প্রশংসনীয় উন্নয়ন ঘটিয়েছে ড্যাফোডিল বিশ্ববিদ্যালয়। তিনি বলেন, ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীরা গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা পালন করার পাশাপাশি আইসিটি ডিভিশনের বিভন্ন কর্মকান্ডে ও প্রকল্পে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে অবদান রেখে চলেছে। সভাপতির বক্তব্যে প্রফেসর ড. এস এম মাহাবুবুল হক মজুমদার বলেন, বেকারমুক্ত দেশ গড়া ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির একটি অন্যতম চ্যালেঞ্জ। সেই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলার একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ হচ্ছে শিক্ষার্থীদের হাতে বিনামূল্যে ল্যাপটপ তুলে দেওয়া। ড্যাফোডিল বিশ্ববিদ্যালয় বিশ্বাস করে, এই ল্যাপটপের মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা নিজেদেরকে কর্মজীবনের জন্য দক্ষরূপে গড়ে তুলতে পারবে।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরও সংবাদ