আজ ৪ঠা জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৮ই মে, ২০২১ ইং

শ্রমিক নেতার উস্কানিতে চাকরিহারা ৬শত শ্রমিক

বিশেষ প্রতিনিধি

গাজীপুরের কোনাবাড়ি এলাকার একটি পোশাক কারখানায় শ্রমিকদের উস্কানি দিয়ে অসন্তোষ সৃষ্টি করে মালিকপক্ষের নিকট থেকে টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে এক শ্রমিক নেতার বিরুদ্ধে।

টাকা লেনদেনের ভিডিও ইতিমধ্যেই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেইসবুকে ভাইরাল হয়েছে। শনিবার (৪ জানুয়ারী) দিবাগত-রাত থেকে এই ভিডিওটি ফেইসবুকে ভাইরাল হতে থাকে।

অভিযুক্ত ইসমাঈল হোসেন ঠান্ডু বাংলাদেশ গার্মেন্টস এন্ড শিল্প শ্রমিক ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারন সম্পাদক বলে জানা গেছে।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, মেডিটেক্স ইন্ডাট্রিজ লিঃ গ্রুপের ইউনিট-৪ কারখানায় ম্যানুয়াল মেশিনের পরিবর্তে অাধুনিক পদ্ধতির জ্যাকার মেশিন প্রতিস্থাপন করার পরিকল্পনা করে কারখানা কতৃপক্ষ। ফ্যাক্টরীতে জায়গা কম থাকার কারনে ফ্যাক্টরী কর্তৃপক্ষ ২ শিপ্টে ম্যানুয়াল মেশিনের ১২নং গেইজ এ ডিউটি করার জন্য শ্রমিকদের প্রস্তাব দেওয়া হয়। গত (২১ ডিসেম্বর) শ্রমিকদের সাথে আলোচনা করে আগামী ১১ জানুয়ারী থেকে ২ শিপ্টে কাজ করার ইচ্ছা প্রকাশ করে শ্রমিকরা।

পরে খবর পেয়ে শ্রমিক নেতা ইসমাইল হোসেন ঠান্ডুসহ চার শ্রমিক নেতা ওই কারখানায় গিয়ে শ্রমিকদের উস্কানি দেয়। এসময় শ্রমিকদের মাঝে ব্যাপক অসন্তোষের সৃষ্টি হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিতে শ্রমিক লিডার ইসমাইল হোসেন ঠান্ডু কারখানা কতৃপক্ষের কাছে ১৫ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে বলে জানায় কারখানার ম্যানেজার বাইজিদ আহমেদ। পরে বিব্রতকর অবস্থার সৃষ্টি হলে বাধ্য হয়ে কতৃপক্ষ তাদের ৩০ হাজার টাকা দেয়। ৩০ হাজার টাকা নেওয়ার পর শ্রমিকদের তারা আরো উস্কানি দেয়। এতে করে চরম অসন্তোষের সৃষ্টি হয়। পরে কারখানা কতৃপক্ষ বাধ্য হয়ে প্রায় ৬’শ শ্রমিকের শ্রম আইন অনুযায়ী টাকা পরিশোধ করেন।

এব্যাপারে কারখানা ম্যানেজার বাইজিদ আহমেদ বলেন, আমাদের বিব্রতকর পরিস্থিতিতে ফেলে শ্রমিক নেতা ইসমাইল হোসেন ঠান্ডু ১৫ লাখ টাকা দাবি করে। তার সাথে আপোষ না করে আমরা শ্রমিকদের পাওনাদি শ্রম আইন অনুযায়ী শনিবার (০৪ ডিসেম্বর) পরিশোধ করি। ঠান্ডু শ্রমিক নেতার জন্য তাদের কারখানার প্রায় ৬’শ শ্রমিক চাকরি হারায় বলেও জানান তিনি।

ইসমাইল হোসেন ঠান্ডু বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, ওই কারখানা কতৃপক্ষ আমাদের দুপুরে খাওয়ার জন্য ৩০ হাজার টাকা দিয়েছিলো।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরও সংবাদ