আজ ৮ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ২২শে জুন, ২০২৪ ইং

আশুলিয়ায় ব্যবসায়ীকে হত্যা চেষ্টা

নিজস্ব প্রতিবেদক :

সাভারের আশুলিয়ায় যুবলীগ নেতা মনির ভূঁইয়ার নেতৃত্বে পলাশ মিয়া (৩২)নামে এক ব্যবসায়ীকে হত্যার উদ্দেশ্যে রড ও দেশীয়অস্ত্র দিয়ে হামলা করা হয়েছে।বৃহস্পতিবার (২২ এপ্রিল) সন্ধ্যা ৭ টার দিকে আশুলিয়ার ধামসোনা ইউনিয়নের ভাদাইল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।আহত পলাশ মিঞা বগুড়া জেলার সারিয়াকান্দি উপজেলার কামালপুর ইউনিয়নের করিতলা গ্রামের নজির হোসেন মণ্ডলের একমাত্র ছেলে ও আশুলিয়া থানা যুবলীগ নেত্রী শাহানাজ পারভীন শোভার স্বামী ।হামলাকারী যুবলীগ নেতা মনির ভূঁইয়া আশুলিয়ার ধামসোনা ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য ও ধামসোনা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি সাদেক ভূঁইয়ার ছেলে।প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার ইফতারের পর মনির ভূঁইয়াসহ ৩০/৪০ জন লোক নিয়ে পলাশের দোকানে আসে। এসময় পলাশকে গালিগালাজ করতে করতে দোকানে প্রবেশ করেন মনির ভূঁইয়া। পরে তাকে রড দিয়ে মারতে মারতে দোকানের বাহিরে নিয়ে আসে সে। বাহিরে থাকা আরো ৩০ থেকে ৪০ জনের সন্ত্রাসী বাহিনী রড ও দেশীয় অস্ত্রদিয়ে হত্যার উদ্দেশ্যে এলোপাথাড়ি ভাবে পেটাতে থাকে। এক সময় পলাশকে মৃত ভেবে রাস্তায় রেখে পালিয়ে যায় মুনির ভূঁইয়া ও তার সন্ত্রাসী বাহিনী।পরে স্থানীয়দের সহযোগিতায় অজ্ঞান হয়ে পড়ে থাকা পলাশকে সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।এ ঘটনায় যুবলীগ নেত্রী শাহানাজ পারভিন শোভা জানান, পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এর আগেও আমাকে পিটিয়ে হাত ভেঙে দিয়েছে সাদেক ভূঁইয়ার ছেলে মনির ভূঁইয়া । আজ আমার স্বামীকেও মেরে ফেলার উদ্দেশ্যে হামলা করেছে সে। আমরা আমাদের জীবনের নিরাপত্তা সহ প্রতিটি হামলার ঘটনার সুষ্ঠু বিচার চাই।এ বিষয়ে আশুলিয়া থানার এস আই ফজর আলী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। মামলার প্রস্তুতি চলছে। এ ঘটনায় দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরও সংবাদ