আজ ১০ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ২৪শে মে, ২০২৪ ইং

আশুলিয়ায় গণধর্ষণ মামলায় গ্রেফতার তিন আসামিকে রিমান্ড চেয়ে আদালতে প্রেরণ

 

নিজস্ব প্রতিবেদক :

ঢাকার আশুলিয়ায় কিশোর গ্যাংয়ের গণধর্ষনের ঘটনায় গ্রেফতারকৃত ৪ আসামির মধ্যে সম্পৃক্ততা না থাকায় একজনকেছেড়ে দেওয়া হয়েছে। বাকি তিন আসামিকে ৭ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠিয়েছে পুলিশ। এ ঘটনায় ১০জনের নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করেছে ভুক্তভোগীর বড় বোন। বৃহস্পতিবার(৮ অক্টোবর) দুপুরে অন্যান্য আসামির সাথে প্রীজন ভ্যানে করে তাদের আদালতে পাঠানো হয়। এর আগে বুধবার(৭ অক্টোবর) ভোর রাতে অভিযান চালিয়ে আশুলিয়ার বিভিন্ন এলাকা ও খুলনা থেকেআসামিদের গ্রেফতার করা হয়। পুলিশজানায়, আশুলিয়ার ভাদাইলের উত্তর পবনারটেক এলাকায় গণধর্ষণের পর ভিডিও ধারনেরঅভিযোগ ওঠে কতিপয় কিছু কিশোরের বিরুদ্ধে। বিষয়টি ধামাপাপা দেওয়ার চেষ্টা করা হলেও প্রায় একমাস পর ভিডিও’রদুটি স্ক্রীনশট সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে ছড়িয়ে পড়ে। পরে ঘটনার তদন্তে নামে আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক এমদাদ,আসওয়াদ ও সুদীপ কুমারগোপীসহ কয়েকটি পুলিশের টিম। তদন্তে ধারনকৃত ভিডিও উদ্ধারের পর ভিডিও’রসূত্র ধরে চার জনকে আটক করা হয়। পরে এক জনের সংশ্লিষ্টতানা থাকায় তার বাবা মার কাছে হস্তান্তর করা হয়। বাকি আসামিদের ৭ দিনের রিমান্ডচেয়ে দুপুরে আদালতে পাঠানো হয়েছে। আশুলিয়াথানার উপ-পরিদর্শক আসওয়াদজানান, এ ঘটনায় তদন্তকরে ৩ আসামিকে গ্রেফতারকরে ৭দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে। বাকিদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। প্রসঙ্গত, গত৩০ আগস্ট বান্ধুবীসহ চাচা ইসরাফিল ও আতোয়ারকে সঙ্গেনিয়ে বেড়াতে গেলে ধর্ষণের শিকার হয় ভুক্তভোগী। ঘটনারভিডিও ধারণ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে মিমাংসারজন্য চাপ প্রয়োগ করে দোষীরা। কোন ধরনের উপায় না পেয়ে ভুক্তভোগীরাআত্মগোপণে যেতে বাধ্য হয়।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরও সংবাদ