আজ ৭ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ২১শে জুন, ২০২৪ ইং

হোমনায় শিক্ষকের উপর হামলা” বাধা দিতে গিয়ে লাঞ্চিত শিক্ষকের দুই মেয়ে

নিজস্ব প্রতিবেদক :

কুমিল্লার হোমনায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে জেরে মেয়ে ও স্ত্রীর সামনে একজন শিক্ষককে লাঞ্ছিত করেছে সন্ত্রাসীরা। গতকাল মঙ্গলবার (২০ এপ্রিল) সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টার দিকে উপজেলার আাসাদপুর ইউনিয়নের পাথালিয়াকান্দি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, উপজেলার দুলালপুর চন্দ্রমণি বহুমুখি উচ্চ বিদ্যালয়ের হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের সিনিয়র শিক্ষক ও জোহর আলী মুন্সি পীর সাহেবের নাতি এসএম শেম রাজটিকা ইফতার শেষে তাঁর শশুর বাড়ি ঘনিয়ারচর যাবার সময় রাস্তার মাঝে একই গ্রামের মো. শাহ আলম নকুলের নেতৃত্বে ১৫ জন সন্ত্রাসীরা তাঁর উপর হামলা করে। এতে বাধা দিতে গেলে তাঁর স্ত্রী ও দুই মেয়ে লাঞ্ছিত হয়। পরে রাত সাড়ে ৯ টার দিকে হোমনা উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে তাদেরকে ভর্তি করা হয়।

এদিকে একজন মানুষ গড়ার কারিগর সবার প্রিয় শিক্ষক শেম রাজটিকা স্যারকে তাঁর মেয়েদের সামনে এভাবে লাঞ্ছিতের ঘটনা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে ক্ষুব্ধ এলাকাবাসী ছাত্রও শিক্ষক সমাজ। এমন ন্যাক্কারজনক ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে অপরাধীদেরকে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন তাঁরা।

এবিষয়ে শিক্ষক এস এম শেম রাজটিকা জানান, মো. শাহ আলমের নেতৃত্বে আমার উপর পরিকল্পিত ভাবে সন্ত্রাসী হামলা করা হয়েছে আমার স্ত্রীও মেয়েদের লাঞ্ছিত করা হয়েছে। বিচার চেয়ে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছি

এদিকে মো. শাহ আলম নকুল জানান, তার মেয়ে অপহরণ মামলায় আমার ছেলের নামে মিথ্যা মামলা দিয়েছিল এর পর থেকে রাজটিকার পরিবারের সাথে আমার পরিবারের বিরোধ চলে আসছে। মঙ্গলবার আমি মাগরিবের নামাজ শেষে রাস্তায় বাহির হলে তাঁর স্ত্রী ও মেয়েসহ আমাকে মারধর করে আমার জামাকাপড় ছিড়ে ফেলে। আমিও থানায় অভিযোগ দিয়েছি।

হোমনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কায়েস আকন্দ অভিযোগের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় উভয় পক্ষই থানায় অভিযোগ দিয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত সাপেক্ষ ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান তিনি।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরও সংবাদ