আজ ৬ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২১শে জুলাই, ২০২১ ইং

স্বপ্নের পদ্মা সেতুর সড়কে পিচ ঢালাইয়ের কাজ শুরু 

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি :  

স্বপ্নের পদ্মা সেতুর সড়ক পথের পিচ ঢালাইয়ের কাজ শুরু হয়েছে। সেতুর জাজিরা প্রান্ত হতে শুরু করে পিচ ঢালাইয়ের কাজ মাওয়া প্রান্তের দিকে এগুচ্ছে। পুরো ৪ ইঞ্চি করে পিচ ঢালাই দেওয়া হচ্ছে বলে সেতু সংশ্লিষ্ট সুত্রে জানাগেছে।

গত মঙ্গলবার ১৩ জুলাই থেকে সেতুর জাজিরা প্রান্তের ৪০ ও ৪১ নম্বর পিয়ারের স্প্যানের সড়ক পথে পিচ ঢালাই কাজ শুরু হয়েছে বলে বুধবার ১৪ জুলাই বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পদ্মা সেতুর নির্বাহী প্রকৌশলী (মূল সেতু) দেওয়ান মো. আব্দুল কাদের। তিনি জানান, প্রথম দিনে মঙ্গলবার সেতুর ৬০মিটার দৈর্ঘ্য ও ১০মিটার প্রস্থ অংশের পিচঢালাই কাজ করা হয়েছে। পিচঢালাই শেষ হলে গাড়ি চলতে পারবে। এর আগে, গত ২০ জুলাই সেতুর রেলওয়ে স্ল্যাব বসানোর কাজ শেষ হয়। সেতুতে বসানো শেষ হয় ২ হাজার ৯৫৯টি রেলওয়ে স্লাব। পদ্মা সেতু প্রকল্প সূত্রে জানাগেছে,গত ৩০ জুন পর্যন্ত পদ্মা সেতুর ৯৪ ভাগ অগ্রগতি হয়েছে। পদ্মা সেতু প্রকল্পের সার্বিক অগ্রগতি ৮৭ ভাগ।

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালের ডিসেম্বর মাসে পদ্মা সেতুর নির্মাণকাজ শুরু হয়। ২০১৭ সালের ৩০ সেপ্টেম্বর ৩৭ ও ৩৮ নম্বর খুঁটিতে প্রথম স্প্যান বসানোর মধ্য দিয়ে দৃশ্যমান হয় পদ্মা সেতু। পরে একে একে ৪২টি পিলারে ১৫০ মিটার দৈর্ঘ্যের ৪১টি স্প্যান বসালে ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ পদ্মা সেতু পুরোপুরি দৃশ্যমান হয় ২০২০ সালের ১০ডিসেম্বর। একইসঙ্গে চলতে থাকে রোডওয়ে, রেলওয়ে স্ল্যাব বসানোসহ অন্যান্য কাজ। ২০ জুন শেষ হয় রেলওয়ে স্লাব বসানোর কাজ। সেতুর মূল আকৃতি দোতলা। মূল সেতু নির্মাণের জন্য কাজ করছে চীনের ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান চায়না মেজর ব্রিজ ইঞ্জিনিয়ারিং কোম্পানি (এমবিইসি) ও নদী শাসনের কাজ করছে দেশটির আরেকটি প্রতিষ্ঠান সিনো হাইড্রো করপোরেশন। দুটি সংযোগ সড়ক ও অবকাঠামো নির্মাণ করেছে বাংলাদেশের আবদুল মোমেন লিমিটেড। কংক্রিট ও স্টিল দিয়ে নির্মিত হচ্ছে এ সেতুর কাঠামো। প্রায় ৩০ হাজার ১৯৩ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত সেতুটি আগামী বছরের জুনে যান চলাচলের জন্য চালু হওয়ার কথা রয়েছে।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরও সংবাদ