আজ ৮ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২১শে জানুয়ারি, ২০২১ ইং

ঝালকাঠিতে ১৬০ একর জমিতে সূর্যমুখীর চাষ

খান ইমরান ,, বরিশাল প্রতিনিধি 

 

ঝালকাঠিতে  ফসলের নিবিড়তা বৃদ্বির লক্ষো এক ফসলি জমিতে ২ ফসল আর ২ ফসলি জমিতে ৩ ফসল করতে কৃষি বিভাগ কৃষকদের দিয়ে বহুমুখী চাষাবাদে আগ্রহী করছে । এরই আলোকে বৃহওর বরিশাল কৃষি উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগ সূর্যমুখী, ভুট্রা, গম, পেঁয়াজ, রসুন সহ বিভিন্ন ফসলের চাষাবাদ শুরু করেছে । তেমনি সূর্যমুখী চাষ এ অঞ্চলে একটি সম্ভাবনাময় ফসল । ঝালকাঠি জেলায় ৪ টি উপজেলায় ১৬০ একর জমিতে সূর্যমুখী চাষ হয়েছে । তেল জাতীয় পণ্যেফসল আমদানির নির্ভরতা কমিয়ে ভোজ্যতেল উৎপাদন বাড়ানো এবং মানুষের স্বাস্থ্য সুরক্ষার লক্ষে জন্য নিয়েই কৃষি বিভাগে কৃষকদের সার, জীব ফসল পরিচ্ছন্ন সহায়তা প্রদান করে এ বছর সূর্যমুখীর আবাদ সম্প্রসারণ করেছে । সূর্যমুখীর এ বছর বাম্পার ফলন হয়েছে এবং বারি-২ জাতের সূর্যমুখীর চাষ থেকে হেক্টর প্রতি ২ মেট্রিক টন উৎপাদন পাওয়া যাবে বলো আশা করছে কৃষি বিভাগ । উৎপাদন ভালো হওয়ার কূষকদের মধ্যেও আনন্দ রয়েছে । ডিসেম্বর মাস থেকে সূর্যমুখীর বীজ রোপণ করা হয় এবং আগামী এপ্রিল মাসের মধ্যে এর কর্তন শেষ হবে । কৃষকদের দাবি তারা এইভাবে সহযোগিতা পেলে এই চাষ অব্যাহত রাখবেন এবং সরকারিভাবে ধান চাল সংগ্রহর মতো কৃষক পর্যায় থেকে ন্যায্য মূল্য দিয়ে বীজ সরকার ক্রয় করলে একদিকে যেমন ন্যায্য মূল্য পাবে এবং কৃষকরা উৎসাহিত হয়ে প্রতি বছরই এই চাষাবাদ বজায় রাখবেন । ঝালকাঠি সদর উপজেলা গাবখান ইউনিয়নের ছএকান্দা ব্লকে আব্দুল হাকিম তার সহযোগীদের নিয়ে ১ পর্যায়ের কর্মকর্তা মো. আসাদুজ্জামান হাওলাদার ও মো.ছালাউদ্দিন এবং উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা সরেজমিন সূর্যমুখীর ক্ষেত পরিদর্শন করে । চাষাবাদের উপরে তাদের পরামর্শ অব্যাহত রেখেছেন ।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরও সংবাদ