আজ ১১ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৫শে জুন, ২০২২ ইং

সুজানগরে প্রাইভেট পড়তে গিয়ে ধর্ষণের শিকার ৭ বছরের শিশু, আসামি গ্রেফতার

 

সুজানগর উপজেলা প্রতিনিধি :

সুজানগরে প্রাইভেট পড়তে গিয়ে শিক্ষকের বাসায় ধর্ষণের শিকার হয়েছে ৭ বছরের এক শিশু। ওই শিক্ষক কর্তৃক শিশুটি ধর্ষিত হওয়ায় এলাকার অভিভাবকদের মাঝে ক্ষোভ বিরাজ করছে।

ঘটনাটি ঘটেছে সুজানগর উপজেলার আহম্মদপুর ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ডের সোনাতলা গ্রামে। ধর্ষক প্রাইভেট শিক্ষক জুয়েল রানা (২৬) সোনাতলা গ্রামের সাদেক মিয়ার ছেলে।

প্রাইভেট শিক্ষক জুয়েল রানা ১০-১২ জন শিশু কে প্রতিদিন প্রাইভেট পড়ান। প্রতিদিনের মত পড়ানো শেষ হলে সেই দিন সবাই কে ছুটি দিলেও ৭ বছরের ওই শিশু কে ছুটি না দিয়ে আরো ও কিছু সময় পড়ানোর কথা বললে ওই শিশুটি বাড়ি চলে যাবে বলে বায়না ধরে। শিক্ষক জুয়েল রানা চকলেট দিবে বলে আশ্বাস দেয়। পরে প্রাইভেট শিক্ষক জুয়েল রানা শিশুটিকে ধর্ষনের চেষ্টা করলে শিশুটি চিৎকার করলে শিশুটিকে ছেড়ে দেয় ধর্ষক জুয়েল রানা।

পরবর্তীতে শিশুটি বাড়িতে গিয়ে তার মায়ের কাছে বলে জুয়েল স্যার আমার প্যান্ট খুলেছে আর বাকিকথা টুকু শোনার পর ভুক্তভোগী শিশুটির বাবা প্রাইভেট শিক্ষক জুয়েল রানা কাছে জিজ্ঞেস করলে সে অস্বীকার করে। শিশুটির বাবা গ্রাম্য সালিশ ঢাকলে ধর্ষক জুয়েল রানার পরিবারের কেউ সালিশে উপস্থিত হয় না। পরে ভুক্তভোগী শিশুটির বাবা আমিনপুর থানায় একটি শিশু ধর্ষন মামলা করলে গতকাল ধর্ষক প্রাইভেট শিক্ষক কে গ্রেফতার করেন আমিনপুর থানা পুলিশ।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরও সংবাদ