আজ ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২০ ইং

গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার হাটগুলোতে স্বাস্থ্যবিধি না মেনে চলছে পশু কেনা-বেচা

মনিরুল ইসলাম মেরাজ  শ্রীপুর প্রতিনিধি: 

করোনা ভাইরাস মহামারির শুরু থেকে সংক্রমনের দিক দিয়ে গাজীপুর অন্যতম হটস্পট হিসেবে বিবেচিত হয়েছে। তবে বর্তমানে করোনা ভাইরাস সংক্রমন অনেকটা কমে গেলেও  কুরবানিকে সামনে রেখে হাটগুলোতে স্বাস্থ্যবিধি না মেনে চলছে পশু কেনা-বেচা, যার ফলে করোনার সংক্রমন আবারও বেড়ে যাওয়ার আশংকা তৈরি হয়েছে।

গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলায় এবার ৫ টি স্থায়ী এবং ৬টি অস্থায়ী পশুর হাট বসেছে।  করোনা সংক্রমনের বিষয়টি না মেনেই চালানো হচ্ছে হাটগুলো।
শ্রীপুর উপজেলার প্রধান কয়েকটি হাট – শ্রীপুর বাজার হাট কেওয়া হাট ও বরমী বাজার হাটে সরজমিনে গিয়ে দেখা দেখা যায়, মানুষের মধ্যে সংক্রমন রোধে কোনো  সচেতনতা নেই। সামাজিক দূরত্ব তো দূরের কথা বেশিরভাগ মানুষের মুখে ছিলনা কোনো মাক্স।

পশুর হাট বসানোর পূর্বে করোনা ভাইরাসের সংক্রমন রোধের জন্য গাজীপুর জেলায় কোনো প্রকার হাট না বসানোর জন্য সুপারিশ করা হয়। কিন্তু পরবর্তীতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে এবং কিছু শর্ত সাপেক্ষে পশুর হাটগুলো চালানোর কথা থাকলেও শ্রীপুর,  বরমী এবং কেওয়ার হাটগুলোতে ঘুরে স্বস্থ্যবিধি মেনে চলার কোনো সত্যতা পাওয়া যায়নি।

এই বিষয়ে শ্রীপুর বাজারের ইজারাদাররা জানান, মাইকের মাধ্যমে বারবার স্বাস্থ্যবিধি মেনে কেনা- বেচার কথা বলছেন তারা এবং যাদের মুখে মাক্স নেই তাদেরকে মাক্স বিতরন করা হচ্ছে।
শ্রীপুুর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা, শেখ শামসুল আরেফিন বলেন, স্বাস্থ্যবিধি মেনে হাট পরিচালনার জন্য নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে এবং সাধারন মানুষকে সচেতন করার জন্য প্রচারনা চালানো হচ্ছে।

করোনা ভাইরাসের সংক্রমন রোধে এখনই কার্যকর ব্যবস্থা নিলে পরবর্তীতে সংক্রমন বাাড়বে না বলে আশা ব্যাক্ত করেন সচেতন নাগরিকরা।

Comments are closed.

     এই বিভাগের আরও সংবাদ